শনিবার, ০৩ ডিসেম্বর ২০২২, ০৭:৪৪ পূর্বাহ্ন

শিরোনাম :
শাহজালাল (রঃ) একাডেমির ৫ম শ্রেনীর বিদায় বিদায় অনুষ্ঠান আলোচনা ও দোয়া সভা সমপন্নছাতকে ইউনিয়ন যুবলীগের ওয়ার্ড কমিটি গঠনভাড়াটিয়া কর্তৃক সৈয়দপুরে দোকান দখল, মিথ্যে মামলায় হয়রানী ও প্রাণনাশের হুমকির বিচার চায় বৃদ্ধাবকশীগঞ্জে সাংবাদিকদের সঙ্গে আওয়ামী লীগের নবাগত সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদকের মতবিনিময়সৈয়দপুরে এসএসসিতে জিপিএ-৫ পেল ইজিবাইক চালকের ছেলে নয়ননীলফামারীর সৈয়দপুর ট্রেনে কাটা পড়ে যুবকের শরীর তিন খন্ডদুমকিতে আর্জেন্টিনা সমর্থকদের আনন্দ শোভাযাত্রানীলফামারীর সৈয়দপুরে ৫ টি দোকান আগুনে পুড়ে ছাই, ২০ লাখ টাকার ক্ষতিওসমানীনগরে বাড়ির উঠান দিয়ে রাস্তা নিতে প্রতিবন্ধি পরিবারে হামলানীলফামারীর সৈয়দপুরে থানা ওপেন হাউস ডে অনুষ্ঠিত

সাংবাদিক ও মিডিয়ার কল্যানে বিয়ে হলো অনশনকারী মুক্তার

মোঃ মিজানুর রহমান, পটুয়াখালী প্রতিনিধি
  • প্রকাশের সময় : বুধবার, ১৬ ফেব্রুয়ারী, ২০২২
  • ১৯৭ বার এই সংবাদটি পড়া হয়েছে

পটুয়াখালীর জেলার দুমকি উপজেলার মুরাদিয়ায় দুমকি থানার (ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা) মো. আব্দুস সালাম, সংবাদকর্মী,ইউপি মেম্বার, চেয়ারম্যান ও স্থানীয় ব্যক্তিবর্গের সহযোগীতায় অবশেষে বিয়ে হল মুক্তা (২৩) নামের এক যুবতীর।



স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, মঙ্গলবার (১৫.০২.২০২২) দিবাগত রাত ৮ টায় উপজেলার উত্তর মুরাদিয়া গ্রামের অনিল সরকারের নিজ বাড়িতে ছেলে অসীম সরকার(২৬) এর সাথে পটুয়াখালী সদর উপজেলার লোহালিয়া ইউনিয়নের কাকড়াবুনিয়া গ্রামের সুভাস হালদারের তরুণী কন্যা মুক্তা হালদারের বিয়ে হয়।

উল্লেখ্য, মুক্তা হালদার গত ৭ ফেব্রুয়ারি সোমবার সন্ধ্যা থেকে বিয়ের দাবিতে প্রেমিক অসিম সরকারের উত্তর মুরাদিয়া গ্রামের বাড়িতে এসে অবস্থান নেয়। কিন্তু ছেলের বাবা-মা কিছুতেই মেনে নিতে রাজি ছিলেন না।

বিভিন্ন মাধ্যমে জানতে পেরে দুমকি থানার (ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা) মো. আব্দুস সালাম ছেলের বাবাকে ছেলে উপস্থিত করে ২৪ ঘন্টার মধ্যে বিয়ের ব্যবস্থা গ্রহনের জন্য বলেন।তার নির্দেশে অসিম সন্ধ্যায় বাড়িতে আসে এবং স্থানীয় গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গ ও গণমাধ্যমের কর্মীদের উপস্থিতিে বিয়ে সম্পন্ন হয় মুক্তা হালদারের।

বিয়ের পরে অনিল সরকার বলেন,ছেলের অফিসে ছুটি নেই। তাই ছেলেকে তার বৌ নিয়ে ভোলা যেতে বলেছি।

মুক্তা বলেন, আমি আমার স্বামীকে নিয়ে আপনাদের আশীর্বাদে সংসার করবো।আমি এখন খুশি।

মুক্তা রানীর মা শেফালী রানী অভিযোগ করে জানান, ছেলের বাড়িতে যে বিয়ে হল তা আমাদের ধর্ম অনুযায়ী সকল কার্যক্রম সঠিকভাবে পরিচালনা হয়নি।

এ বিষয়ে স্থানীয় মহিলা ইউপি সদস্য জান্নাতুল ফেরদৌস বলেন, মেয়েটির বিয়ে হওয়াতে আমি অত্যন্ত খুশি হয়েছি। ওরা সুখে থাকুক।

এই সংবাদটি শেয়ার করুনঃ

এই ক্যাটাগরির আরো সংবাদ
© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত
ডিজাইন ও কারিগরি সহযোগিতায়: Jp Host BD
jphostbd-15000