শুক্রবার, ২৭ জানুয়ারী ২০২৩, ০৫:২৩ পূর্বাহ্ন

শিরোনাম :
শেখ কামাল আন্তঃস্কুল ও মাদ্রাসা এ্যাথলেটিকস্ প্রতিযোগিতার উদ্ভোধনসৈয়দপুরে সাবেক এমপি আমজাদ হোসেন সরকারসহ ৩ বিএনপি নেতার স্মরনসভা অনুষ্ঠিতমিরেরচরেই হবে টেকনিক্যাল স্কুল এন্ড কলেজ -বিশ্বনাথে এমপি মোকাব্বিরনীলফামারীর কিশোরগঞ্জে ভূয়া এনএসআই সদস্যসহ আটক-২ওসমানীনগরের নবগ্রাম স্কুলের প্রাক্তন ছাত্র পরিষদ কমিটি গঠনবাংলাদেশ মফস্বল সাংবাদিক ফোরাম কুমিল্লার মুরাদনগর উপজেলা কমিটি গঠনসৈয়দপুরে বিসিক শিল্পনগরীতে প্লাইউড কারখানায় আগুনে কোটি টাকার ক্ষতিজামায়াত আমীর ডাঃ শফিকুর রহমানকে গ্রেফতারের প্রতিবাদে লন্ডনে বিক্ষোভ সমাবেশছাতকের খুরমা উচ্চ বিদ্যালয়ে মহান বিজয় দিবসে আলোচনা সভানীলফামারীর সৈয়দপুরে মহান বিজয় দিবস পালিত

মিয়ানমারে বিক্ষোভ ও গুলিবর্ষণ

ডেস্ক রিপোর্ট:
  • প্রকাশের সময় : সোমবার, ১৫ ফেব্রুয়ারী, ২০২১
  • ৪৭৩ বার এই সংবাদটি পড়া হয়েছে

মিয়ানমারে অভ্যুত্থানের বিরুদ্ধে গণবিক্ষোভ দমনে দিন দিন খড়গহস্ত হচ্ছে জান্তা বাহিনী। রোববার বিক্ষোভকারীদের ছত্রভঙ্গ করে দিতে নিরাপত্তা বাহিনী গুলি চালিয়েছে বলে খবর পাওয়া গেছে। এ ছাড়া বড় বড় নগরীতে রাস্তায় সাঁজোয়া যান টহল দিতে শুরু করেছে।

বিক্ষোভের নবম দিনে রোববার উত্তরাঞ্চলের কাচিন রাজ্যে গুলি চালিয়েছে সেনাবাহিনী। কাচিন রাজ্যের মিতকিনা শহরে নিরাপত্তা বাহিনী ও বিক্ষোভকারীদের মধ্যে সংঘর্ষের সময় গুলির শব্দ শোনা গেছে। সেখানে পাঁচজন সাংবাদিককে আটক করার খবর পাওয়া গেছে। এই অবস্থা দেখে জাতিসংঘের এক কর্মকর্তা অভিযোগ করেছেন, সেনাবাহিনী ‘যুদ্ধ ঘোষণা’ করেছে।

মিয়ানমার–বিষয়ক জাতিসংঘের বিশেষ কর্মকর্তা টম অ্যান্ড্রুজ বলেন, জান্তা সরকার বেপরোয়া আচরণ করছে। এ জন্য তাদের জবাবদিহি করতে হবে।

জাতিসংঘ মহাসচিব অ্যান্তোনিও গুতেরেস রোববার এক বিবৃতিতে মিয়ানমারের পরিস্থিতি নিয়ে গভীর উদ্বেগ প্রকাশ করেছেন।

এদিকে ইউরোপীয় ইউনিয়ন, যুক্তরাষ্ট্র ও যুক্তরাজ্যের স্বাক্ষরিত এক বিবৃতিতে বলা হয়েছে– বিক্ষোভকারীদের বিরুদ্ধে সহিংস আচরণ থেকে বিরত থাকার জন্য আমরা নিরাপত্তা বাহিনীর প্রতি আহ্বান জানিয়েছি। বৈধ সরকারকে ক্ষমতাচ্যুত করার প্রতিবাদে তারা বিক্ষোভ করছেন।

সোমবার ইয়াঙ্গুনসহ বেশ কয়েকটি শহরে ভারি অস্ত্রশস্ত্র নিয়ে অবস্থান নিয়েছে সেনাবাহিনী। তারা বিক্ষোভ দমনে তৎপর। বিক্ষোভকারীরা টান ১০ দিনের মতো বিক্ষোভ শুরু করেছেন।

এদিকে মিয়ানমারের এনএলডি নেত্রী অং সান সু চিকে ১৭ ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত রিমান্ডে রেখে জিজ্ঞাসাবাদ করা হবে। অর্থাৎ সু চির আটকাদেশ বাড়ছে।
সুত্র: সিলেট ভয়েস

এই সংবাদটি শেয়ার করুনঃ

এই ক্যাটাগরির আরো সংবাদ
© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত
ডিজাইন ও কারিগরি সহযোগিতায়: Jp Host BD
jphostbd-15000