বুধবার, ০১ ডিসেম্বর ২০২১, ১২:৪১ অপরাহ্ন
শিরোনাম :
বিশ্বনাথ উপজেলা আল ইসলাহ’র কমিটি: সভাপতি আখতার আলী সম্পাদক হাবিবজামালপুরের বকশীগঞ্জে দলিল লেখক সমিতির নির্বাচন অনুষ্ঠিতদেবীদ্বার পৌর আওয়ামী লীগ নেতা মরহুম হাজী শহীদুল্লাহ খাজার জানাজা ও দাফন সম্পন্নকুমিল্লার দেবীদ্বার উপজেলা মহিলা শ্রমিক লীগের কমিটি ৩বছরের জন্য অনুমোদনদুমকিতে এইচ.এস.সি ও বি.এম পরীক্ষার প্রস্তুতিমূলক সভাফের গাজিপুরের এক গার্মেন্টসে অগ্নিকাণ্ডের ঘটনাকিশোরগঞ্জে ভোটকেন্দ্রে বিজিবি সদস্য নিহতের ঘটনায় স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের প্রতিনিধি দলের পরিদর্শনসৈয়দপুরে স্ত্রী হত্যাচেষ্টা মামলায় আ’লীগ নেতা জেল হাজতেবালাগঞ্জের কাশিপুর খালের ভাঙ্গন পরিদর্শন করলেন উপজেলা নির্বাহী অফিসার ও ইউনিয়ন চেয়ারম্যানসিটি কর্পোরেশন সহ সিলেটের ৩২টি অফিসের বিরুদ্ধে বেশি অভিযোগ দুদকের গণশুনানিতে

মিডিয়ায় অযোগ্যদের দাপট, আমাদের বিবেক ডাষ্টবিনে

ডেস্ক নিউজ
  • প্রকাশের সময় : রবিবার, ৩১ অক্টোবর, ২০২১
  • ৪০ বার এই সংবাদটি পড়া হয়েছে

পরীমনি একজন জামিনপ্রাপ্ত আসামী। মারাত্বক মাদক মামলার আসামী। তিনি অশ্লীল ভাবে জন্মদিনের পার্টি করেন, সেটা টিভিতে সম্প্রচার হয়েছে। জাতীয় কাগজে নিউজ৷



পুলিশের চার্জশিটে পরীমনি দোষী , সেটা পুলিশ জমা দিয়েছেন। সেটার শুনানী হবে। প্রকাশ্যে লাইভ করে পুলিশ ও RAB মাদক আটক করেছিল। সারা বিশ্ব দেখেছে। এখন পুলিশের রিপোর্ট ভুল প্রমান করবেন পরীমনির আইনজীবীরা৷

বিচারক মহোদয় ন্যায় বিচার করবেন, সেটা প্রত্যাশা। পরীমনি আদালতে যান দুই ঘন্টা দেরীতে, বিচারক আইনজীবী বসে থাকেন। তারপর বেহুশ হবার অভিনয় করেন। কত নাটক চলে।
মিডিয়ায় যারা আছেন, তারা একটু ভেবে দেখেন না। কি প্রচার করেন, কি করবেন৷

বড় বড় আলেমদের জামিন হচ্ছে না৷ তাদের হাতে হাতকড়া। তারা কি করেছেন, সেই দিকে গেলাম না। জামিন কারা পান, সেটার একটি সুনির্দিষ্ট ব্যাখ্যা আছে। যারা সম্মানিত, মোষ্ট ইমপর্টেন্ট পারসন। পরিমনী যেমন ইন্ডাষ্ট্রীর জন্য্ গুরুত্বপুর্ন। মুফতি, মৌলানা বড় বড় ১০/২০/৩০/ ৫০ হাজার ছাত্র ছাত্রীদের প্রতিষ্টানের কর্নধার। তাদের কথা লাখ কোটি মানুষ শুনেন।
পরীমনি পুরো বিচার বিভাগের ভাবমুর্তিতে বৃন্দাঙ্গুলী দেখাচ্ছেন। জামিন প্রাপ্ত হয়ে অশ্লীলতা করেছেন।

পর্নোগ্রাফি এ্যাক্টে আরও একটা মামলা হতে পারে। এক সপ্তাহের মধ্যে আমরা রীট করবেন বলে ইচ্ছা করছেন।
বলিউডের অনেক সুপার স্টার হরিন মারার অপরাধে ও জেল খেটেছেন। পরিমনি জামিন পেয়ে এসকর্ট করে আসেন। লজ্জার ও লজ্জা থাকা উচিত। জাতীয় কাগজে নিউজ।

শত শত নিউজ, অপরাধী জামিন পেয়ে হাতে কি লিখেছেন, সেটা গবেষনা করেন একদল। বেহায়াপনারও সীমা থাকে৷
বিনোদন সাংবাদিকরা ও জাতীয় কাগজের ও টিভির সাংবাদিকরা আপনারা নিজের বিবেকের কাছে প্রশ্ন রাখুন৷ কি প্রচার করবেন। পরীমনি আটকের ক্লিপ টা আপনারা ভুলে গেছেন৷

ই ভ্যালী ও ইভ্যালীর সিইও রাসেল কে নিয়ে লড়েছিলাম আমরা। তিনি আজ কারাগারে আছেন। কিন্তুু অতিলোভীরা সব সময়ই মার খান।
দেশের শীর্ষ হাদিস বিশারদ মুফতি ইব্রাহীম কারাগারে।উনার মতো বড়ো আলেম বাংলাদেশে নাই। উনার হাতে হাতকড়া পরিয়েছিল পুলিশ৷ ভুল করলে বিচার হবে, জামিন হবে না কেন?

কেউ কি দাড়াবেন প্লে কার্ড হাতে। পরীমনির বিচার চাই। ৬ বোতল ফেনসিডিল নিয়ে ধরা পড়লে সারা জীবন পুরো পরিবারকে কোর্টে দৌড়াতে হয়। সততার ও বিবেকের যুদ্ব চলবেই৷

এই সংবাদটি শেয়ার করুনঃ

এই ক্যাটাগরির আরো সংবাদ
© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত
ডিজাইন ও কারিগরি সহযোগিতায়: Jp Host BD
jphostbd-15000