বুধবার, ২৮ সেপ্টেম্বর ২০২২, ১০:০০ পূর্বাহ্ন

শিরোনাম :
রাজনগরের জোড়া খুনের ৫আসামী গ্রেফতারবকশীগঞ্জে বিনামূল্যে সার ও মাসকালাই বীজ বিতরণরাজনগরের সোনাপুর উচ্চ বিদ্যালয়ে ম্যানজিং কমিটির সভাপতি নির্বাচিত হলেন সাংবাদিক আব্দুল হাকিম রাজসৈয়দপুর ১০০ শয্যা হাসপাতালে আল্ট্রা সনোগ্রাম মেশিন থাকলেও সেবা থেকে বঞ্চিত রোগীরাবিশ্বনাথ পৌরসভা নির্বাচনে নৌকার মাঝি হতে সিভি জমা দিলেন ১০ আ’লীগ নেতাবিশ্বনাথ পৌর নির্বাচনে কাউন্সিলর প্রার্থী মো. দবির মিয়া সকলের দোয়া ও সমর্থন চেয়েছেনসিলেট-সুনামগঞ্জ মহা সরক দূর্ঘটনায় নিহত ১ আহত ২শান্তিগঞ্জে জামায়াতের পক্ষ থেকে নতুন ঘর প্রদানরাজনগরে জমি সংক্রান্ত বিরোধে দুই পক্ষের সংঘর্ষে ২ জন নিহত,আহত ৪চরগরবদি চরাঞ্চলে লাঠিয়াল বাহিনীর তান্ডব, ৫ একর জমির রোপা আমনের ক্ষেত বিনস্ট

নানা ঘটনায় আলোচনায় তালেবান, আফগানিস্তান নিয়ন্ত্রণের এক মাসে

ডেস্ক রিপোর্ট
  • প্রকাশের সময় : বৃহস্পতিবার, ১৬ সেপ্টেম্বর, ২০২১
  • ১৩০ বার এই সংবাদটি পড়া হয়েছে

আফগানিস্তান নিয়ন্ত্রণের এক মাসে নানা ঘটনায় আলোচনায় তালেবান।



মন্ত্রীপরিষদ গঠন করতে না পারা, নারী অধিকার নিয়ে বিক্ষোভ, সাংবাদিক নির্যাতন থেকে শুরু করে সবশেষ ক্ষমতা নিয়ে কোন্দল সবই ঘটেছে এই ৩০ দিনে। আফগানিস্তানে গেল এক মাসে তালেবান কার্যক্রম নিয়ে বিস্তারিত।
এক মাসের তালেবানি শাসনে যা হলো আফগানিস্তানে

দুই দশক পর গেল ১৫ আগস্ট আফগানিস্তানের নিয়ন্ত্রণ নেয় তালেবান। এদিন তালেবানের ভয়ে দেশত্যাগে মরিয়া সাধারণ আফগানরা ভিড় করেন কাবুল বিমানবন্দরে। বিমানের চাকায় উঠে কেউবা কাঁটাতারের বেড়া পার হয়ে পালানোর সময় ঘটে হতাহতের ঘটনাও।

আনুষ্ঠানিক সংবাদ সম্মেলন করে তালেবানরা তাদের বিজয় দাবি করে ১৭ আগস্ট। নিয়ন্ত্রণ নিলেও বিভিন্ন প্রদেশে তালেবানবিরোধী বিক্ষোভ চলতেই থাকে দেশটিতে। ১৮ আগস্টে জালালাবাদে তালেবানবিরোধী বিক্ষোভে নিহত হন তিনজন।

দেশটিতে ক্রমেই অর্থনৈতিক সংকটের খবর সামনে আসতে থাকে। এরমধ্যেই হাজি মোহাম্মদ ইদ্রিসকে কেন্দ্রীয় ব্যাংকের গভর্নর করার খবর আসে ২৩ আগস্ট। বিশ্ব খাদ্য কর্মসূচি আফগানিস্তানে খাদ্যসংকটের কথা জানায় এরপরদিনই।

কাবুল বিমানবন্দরের কাছে আত্মঘাতী বোমা হামলায় ১৩ মার্কিন সেনাসহ ২০০ জনের বেশি নিহত হওয়ার দিনটি ছিল ২৬আগস্ট। আর মার্কিন সামরিক বাহিনী আইএস সদস্যকে লক্ষ্য করে ড্রোন হামলা চালায় এরপরদিন।

৩১ আগস্টের মধ্যে মার্কিন সেনা প্রত্যাহারের পর থেকেই আফগানিস্তান দখলে নিতে মরিয়া ছিল তালেবান। মার্কিন সেন্ট্রাল কমান্ড আফগানিস্তান থেকে সেই সেনা প্রত্যাহার করে নেয় ৩০ আগস্টে।

এদিকে পানশির নিয়ন্ত্রণে বিরোধীরা চেষ্টা করলেও তালেবান সদস্যরা পানশির উপত্যকা নিয়ন্ত্রণের দাবি করে। কাবুল বিমানবন্দর স্থানীয় সেবার জন্য আবার চালু হয় ৪ সেপ্টেম্বরে। এরমধ্যেই সরকার গঠনের তোড়জোড় চলতে থাকে দেশটিতে।

সব জল্পনা-কল্পনা ছাপিয়ে তালেবান অন্তর্বর্তীকালীন সরকার ঘোষণা করে ৭ সেপ্টেম্বর। এরপর একে একে মন্ত্রীপরিষদ গঠন হয় দেশটিতে। মন্ত্রীপরিষদে নারীসদস্য না থাকায় এর জের ধরে নারীরা বিক্ষোভ করে কাবুলসহ বিভিন্ন দেশে।

সেখান থেকে সাংবাদিকরা বিক্ষোভের ফুটেজ সংগ্রহ করতে গেলে প্রতিশ্রুতি ভঙ্গ করে নিপীড়নের ঘটনাও ঘটেছে। তবে এখনও শপথ গ্রহণ অনুষ্ঠিত হয়নি দেশটিতে।এদিকে, ৯ সেপ্টেম্বর তালেবান সরকারের অধীনে প্রথম আন্তর্জাতিক ফ্লাইট কাবুল ছাড়ে।

১৩ সেপ্টেম্বর আন্তর্জাতিক সম্প্রদায় আফগানিস্তানকে শতকোটি মার্কিন ডলার সাহায্যের প্রতিশ্রুতি দেয়। আর ১৪ সেপ্টেম্বর দেশটির দক্ষিণাঞ্চলীয় কান্দাহার শহরেও হাজারো আফগান নাগরিক বিক্ষোভ করেছেন।

সবশেষ আফগানিস্তানে প্রেসিডেন্ট প্রাসাদে সদ্যঘোষিত তালেবান সরকারের গঠন নিয়ে সংগঠনটির নেতাদের মধ্যে বাকবিতণ্ডা হয়েছে। তবে গেল এক মাসে এসেছে শিক্ষা ব্যবস্থায় আমূল পরিবর্তন, হয়নি নারী অধিকার প্রতিষ্ঠা এমনকি এখনও বিশ্ব সম্প্রদায়ের কাছ থেকে স্বীকৃতি মেলেনি তালেবানের।

এই সংবাদটি শেয়ার করুনঃ

এই ক্যাটাগরির আরো সংবাদ
© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত
ডিজাইন ও কারিগরি সহযোগিতায়: Jp Host BD
jphostbd-15000