বুধবার, ১৯ জানুয়ারী ২০২২, ০৬:৫৭ পূর্বাহ্ন

শিরোনাম :
কুমিল্লার গোমতী চরে ভ্রাম্যমান আদালতের অভিযানে ৩ ব্যবসায়ি গ্রেফতার সাড়ে ৩ লক্ষ টাকা জরিমানাসিলেটের বিশ্বনাথের লামাকাজীতে ভ্রাম্যমান আদালত কর্তৃক একাধিক প্রতিষ্টানকে জরিমানাপটুয়াখালীর দুমকিতে ৫০ তম স্কুল, মাদ্রাসা ও কারিগরি ক্রীড়া প্রতিযোগিতার উদ্ধোধনআগামীকাল নতুন বেরী ইসলামী সাংস্কৃতিক ফোরামের ২য় গজল সন্ধ্যাঃ আসছেন বুলবুলসুনামগঞ্জের ছাতকের মল্লিকপুর লতিফিয়া ক্বারী সোসাইটির কমিটি গঠনসিলেটের বিশ্বনাথের লামাকাজীতে চেয়ারম্যান ধলা মিয়ার সমর্থনে সৎপুর গ্রামে উঠান বৈঠকবিশ্বনাথের লামাকাজীতে ‘বৈদ্যুতিক পাখা’ প্রতিকের নির্বাচনী প্রধান কার্যালয়ের উদ্বোধনজামালপুরের বকশীগঞ্জে ইউপি নির্বাচনে সহিংসতার ঘটনা নিয়ে এসপির মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিতজামালপুরের বকশীগঞ্জে সম্মানী ভাতা শিক্ষার্থীদের মাঝে বিতরণ করলেন বীর মুক্তিযোদ্ধা আফসার আলীসিলেটের বিশ্বনাথে কর্মরত সাংবাদিকদের সাথে নির্বাচন কর্মকর্তার মতবিনিময়

জামালপুরের বকশীগঞ্জে লকডাউন কার্যকরে কঠোর প্রশাসন, ভ্রাম্যমাণ আদালতে অর্থদন্ড

রিপোটারের নাম
  • প্রকাশের সময় : শনিবার, ৩ জুলাই, ২০২১
  • ১৫০ বার এই সংবাদটি পড়া হয়েছে

জিএম ফাতিউল হাফিজ বাবু,বকশীগঞ্জ প্রতিনিধিঃ
জামালপুরের বকশীগঞ্জে করোনা সংক্রমণ রোধে লকডাউনের তৃতীয় দিনে কঠোর হয়েছে উপজেলা প্রশাসন ও পুলিশ সদস্যরা।
শনিবার উপজেলা প্রশাসনের পক্ষে উপজেলা নির্বাহী অফিসার (ইউএনও) মুন মুন জাহান লিজা ও সহকারী কমিশনার (ভূমি) ¯িœগ্ধা দাস বিভিন্ন হাট বাজারে মনিটরিং করেন।
সহকারী কমিশনার (ভূমি) ¯িœগ্ধা দাস লকডাউনে অকারণে ঘুরাঘুরি, স্বাস্থ্য বিধি না মানার কারণে নয় টি মামলায় দুই হাজার ৫০০ টাকা অর্থদন্ড প্রদান করেছেন।
এদিকে কারণে অকারণে শহরে জনসমাগম ঠেকাতে বকশীগঞ্জ থানা পুলিশ সব ধরণের যান চলাচল বন্ধ করে দেয়। বকশীগঞ্জ বাস স্ট্যান্ড মোড় , মালিবাগ মোড়, পানহাটি মোড়, উপজেলা মোড়ে, পুরাতন গরুহাটি মোড়ে অবস্থান নিয়ে কোন যানবাহন পৌর শহরে ঢুকতে দেয়নি পুলিশ। বৈরী আবহাওয়া উপক্ষো করে বকশীগঞ্জ থানা পুলিশের সদস্যরা অক্লান্ত পরিশ্রম করে লকডাউন বাস্তবায়নে কাজ করে যাচ্ছেন।
লকডাউন বাস্তবায়নে উপজেলা প্রশাসন ও পুলিশ প্রশাসনের কর্মকর্তারা সাধারণ মানুষকে সচেতনতার বার্তা দিয়ে যাচ্ছেন। প্রশাসনের কঠোরতায় তৃতীয় দিনে পৌর শহরের বেশির ভাগ দোকান পাট বন্ধ ছিল। তবে কিছু কিছু ব্যবসায়ীরা চোর-পুলিশ খেলায় লিপ্ত ছিল। কিছু ব্যবসায়ী পুলিশ বা ইউএনও’র গাড়ি দেখলেই দোকানের সাটার বন্ধ রাখেন আবার তারা চলে গেলেই দোকানের সাটার খুলে বেচাকেনা করতে দেখা গেছে।
প্রশাসনের পক্ষ থেকে এসব ব্যবসায়ীদের কর্ড়া বার্তা দেওয়া হলেও তারা প্রশাসনের কথা আমলে নিচ্ছেন না ।
উপজেলা নিবাহী অফিসার মুন মুন জাহান লিজা জানান, সরকারের দেওয়া লকডাউন বাস্তবায়নে উপজেলা প্রশাসন মাঠে কাজ করে যাচ্ছে, কেউ বিনা কারণে ঘর হতে বের হলে তাকে শাস্তির মুখোমুখি হতে হবে।

এই সংবাদটি শেয়ার করুনঃ

এই ক্যাটাগরির আরো সংবাদ
© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত
ডিজাইন ও কারিগরি সহযোগিতায়: Jp Host BD
jphostbd-15000