শুক্রবার, ২৭ মে ২০২২, ০৩:২১ পূর্বাহ্ন

শিরোনাম :
বিশ্বনাথে ৩ শতাধিক প্রতিবন্ধীদের মাঝে ত্রাণ বিতরণ করলেন নুনু মিয়াবেগম খালেদা জিয়া কে হত্যার হুমকির প্রতিবাদে নীলফামারীর সৈয়দপুরে বিএনপির বিক্ষোভসিলেটে বন্যার্তদের নগদ অর্থ ও ত্রাণ বিতরণ করলেন প্রবাসী কমিউনিটি নেতা শফিক উদ্দিনকুমিল্লার দেবীদ্বার থানার মানবিক অফিসার ইনচার্জ প্রত্যাহারে সাধারণ মানুষের ক্ষোভ প্রকাশবিশ্বনাথে দশঘর ইউনিয়নে বন্যার্তদের ত্রাণ বিতরণ করলেন এসএম নুনু মিয়াওসমানীনগরে ২কোটি টাকা মূল্যের তিনতলা বাসা দখল নিয়ে দু’পক্ষের উত্তেজনাপররাষ্ট্রমন্ত্রী রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসনে আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়ের সক্রিয় সম্পৃক্ততার আহ্বানবিশ্বনাথে ‘হাজী তেরা মিয়া ডেভেলপমেন্ট ট্রাস্ট’র পক্ষ থেকে খাদ্য সামগ্রী বিতরণজামালপুরের বকশীগঞ্জে অটিজম ও নিউরো ডেভেলপমেন্টাল প্রতিবন্ধিতা বিষয়ক ওরিয়েন্টেশন কর্মশালা অনুষ্ঠিতমৌলভীবাজার মুনিয়া নদী থেকে বৃদ্ধের মৃতদেহ উদ্ধার

চাউলধনী হাওরের বর্তমান অবস্হা ও ভবিষ্যত কর্মপন্থা নির্ধারণের লক্ষ্যে বিশ্বনাথে মতবিনিময়

ফারুক আহমদ
  • প্রকাশের সময় : শনিবার, ৪ সেপ্টেম্বর, ২০২১
  • ৮৫ বার এই সংবাদটি পড়া হয়েছে

সিলেট জেলার বিশ্বনাথ উপজেলার বহুল আলোচিত চাউলধনী হাওরের বর্তমান অবস্থা পর্যালোচনা ও ভবিষ্যত কর্মপন্থা নির্ধারণের লক্ষ্যে মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে।

আজ শনিবার (৪ সেপ্টেম্বর) বিকালে উপজেলার দৌলতপুর ইউনিয়নের দশপাইকা আনরপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের কনফারেন্স হলরুমে এই সভা অনুষ্ঠিত হয়।

চাউলধনী হাওর ও কৃষক বাঁচাও আন্দোলনের আহবায়ক এবং উপজেলা আ’লীগের সদস্য আবুল কালামের সভাপতিত্বে এবং সংগঠক শফিক আহমদ পিয়ারের পরিচালনায় অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন আন্দোলনের প্রধান উপদেষ্টা, বিশ্বনাথ উপজেলা পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যান মুহিবুর রহমান।

বক্তব্যে তিনি বলেছেন চাউলধনী হাওর খেকো জলদস্যু সাইফুল ইসলাম এবং তার বাহিনীর হাতে কৃষক ছরকুম আলী দয়াল ও স্কুলছাত্র সুমেল নির্মমভাবে নিহত হওয়ার এতদিন পেরিয়ে গেলেও দলীয় অদৃশ্য শক্তির ছত্রচ্ছায়ায় খুনি সাইফুল ও তার বাহিনী এখনোও লুকিয়ে আছে।
এ দুটি খুনের ঘটনায় তথাকথিত নির্বাচিত জনপ্রতিনিধি দৌলতপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আমির আলী উভয়পক্ষ থেকে ফায়দা হাসিলের চেষ্টা করেন। তিনি চাউলধনী হাওর বাঁচাও আন্দোলন ও ছরকুম আলী-সুমেল খুনের বিচার দাবির আন্দোলনে যুক্ত হন। অথচ, ওই হাওরের সাবলিজে অংশিদার হিসেবে তার নাম আছে। নাম আছে যুবলীগ নেতা মকদ্দুছ আলী ও আ’লীগ নেতা বশির আহমদের ভাই কবির আহমদের।
তারা বিশ্বনাথ উপজেলা আ’লীগের কতিপয় নেতাকে চাউলধনী হাওরের বড়বড় মাছ দিয়ে অথবা কোটি কোটি টাকার মাধ্যমে ক্রয় করে আমাদের আন্দোলনের বিরুদ্ধে বিবৃতি দিয়েছে। ষড়যন্ত্রকারীরা যতই ষড়যন্ত্র করুক, কৃষক ছরকুম আলী দয়াল ও স্কুলছাত্র সুমেল হত্যার বিচার হবেই হবে।

মতবিনিময় সভায় আরো বক্তব্য রাখেন আয়োজক সংগঠনের যুগ্ম আহবায়ক ও দৌলতপুর ইউনিয়ন আ’লীগের সভাপতি আরিফ উল্লাহ সিতাব, চাউলধনী হাওর কৃষক বাঁচাও আন্দোলন কমিটির সদস্য রুশন আলী, আব্দুল মুমিন কালু, আবু খালেক, ইউনিয়ন সদস্য আব্দুল মজিদ।
শুরুতেই পবিত্র কোরআনে পাক থেকে তিলাওয়াত করেন মাওলানা ছমির উদ্দিন।

এসময় উপস্হিত ছিলেন চাউলধনী হাওর কৃষক বাঁচাও আন্দোলনের যুগ্ন আহবায়ক নজির উদ্দিন, শামছ উদ্দিন মেম্বার, সদস্য আব্দুল মজিদ মেম্বার, আলা উদ্দিন, আক্তার হোসেন, হাফিজ আরব খান, শফিকুর রহমান, লুৎফুর রহমান, মুস্তফা মিয়া, লায়েছ রহমান, মাহফুজুর রহমান, নোয়াব আলী, আব্দুল কাদির, রুশন আলী, মকদ্দুস আলী, আহমদ আলী, সিদ্দেক আলী, ইছহাক আলী, আফজল হোসেন, আব্দুল করিম, ইব্রাহীম আলী সিজিল, নজরুল ইসলাম আজাদ, আবু খালেক, এসপি সেবু, কুতুব উদ্দিন, দুলাল মিয়া, লিলু মিয়া, জামাল আহমদ, আবু সালেহ, হোসেন আহমদ, রিপন মিয়া, ছালিক মিয়া, ইউসুফ আলী, শাহিন মিয়া, আজাদ মিয়া।

এই সংবাদটি শেয়ার করুনঃ

এই ক্যাটাগরির আরো সংবাদ
© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত
ডিজাইন ও কারিগরি সহযোগিতায়: Jp Host BD
jphostbd-15000