সোমবার, ০৫ ডিসেম্বর ২০২২, ১১:১৬ অপরাহ্ন

শিরোনাম :
কিশোরগঞ্জে ধর্ষণের দায়ে এক শিক্ষক জেল হাজতেনীলফামারীর সৈয়দপুরে রেললাইন থেকে ছাত্রের লাশ উদ্ধারশাহজালাল (রঃ) একাডেমির ৫ম শ্রেনীর বিদায় বিদায় অনুষ্ঠান আলোচনা ও দোয়া সভা সমপন্নছাতকে ইউনিয়ন যুবলীগের ওয়ার্ড কমিটি গঠনভাড়াটিয়া কর্তৃক সৈয়দপুরে দোকান দখল, মিথ্যে মামলায় হয়রানী ও প্রাণনাশের হুমকির বিচার চায় বৃদ্ধাবকশীগঞ্জে সাংবাদিকদের সঙ্গে আওয়ামী লীগের নবাগত সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদকের মতবিনিময়সৈয়দপুরে এসএসসিতে জিপিএ-৫ পেল ইজিবাইক চালকের ছেলে নয়ননীলফামারীর সৈয়দপুর ট্রেনে কাটা পড়ে যুবকের শরীর তিন খন্ডদুমকিতে আর্জেন্টিনা সমর্থকদের আনন্দ শোভাযাত্রানীলফামারীর সৈয়দপুরে ৫ টি দোকান আগুনে পুড়ে ছাই, ২০ লাখ টাকার ক্ষতি

ওসমানীনগরে একই স্থানে বিএনপি’র দু গ্রুপের ইফতার নিয়ে উত্তেজনা

ওসমানীনগর প্রতিনিধি
  • প্রকাশের সময় : সোমবার, ১৮ এপ্রিল, ২০২২
  • ২৯৬ বার এই সংবাদটি পড়া হয়েছে

সিলেটের ওসমানীনগরে উপজেলা বিএনপি’র ব্যানারে একই স্থানে দু’গ্রæপের ইফতারের আয়োজন নিয়ে উত্তেজনা দেখা দিয়েছে। উপজেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে উভয়কে সংযত থাকার পরামর্শ দেওয়া হয়েছে।



মূলত উপজেলা বিএনপি’র কাউন্সিলে দলের গঠনতন্ত্র পরিপন্থি প্রকাশ্য ভোট গ্রহণের অভিযোগ এনে একটি গ্রæপ নব গঠিত কমিটিকে পকেট কমিটি আখ্যা দিয়ে কমিটি বাতিলের দাবী জানিয়ে আন্দোলন করছে। কমিটি বালিতের জন্য একটি পক্ষ আদালতে মামলা দায়ের করেছে।

গত ১১ এপ্রিল উপজেলার তাজপুর কদমতলাস্থ একটি পার্টি সেন্টারে উপজেলা বিএনপির নবগঠিত কমিটির বিরোধী গ্রæপ উপজেলা বিএনপি’র ব্যানারে একটি ইফতার মাহফিলের আয়োজন করেন। তখন বর্তমান কমিটির নেতৃবৃন্দ এ ইফতার মাহফিলে কর্মীদের উপস্থিত না হওয়ার জন্য আহবান জানিয়ে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে বিবৃতি প্রদান করেন। কিন্তু নব গঠিত কমিটির বিরোধীতার পরেও ইফতার মাহফিল সফল করেন বিরোধী গ্রæপ এর নেতা কর্মীরা।

আগামি ২০ এপ্রিল বুধবার উপজেলার দয়ামীরস্থ মাহরা পার্টি সেন্টারে উপজেলা বিএনপি’র নব গঠিত কমিটির উদ্যোগে ইফতার মাহফিল করার ঘোষণা দেন। বিষয়টি জানতে পেরে একই স্থানে কমিটি বাতিলের দাবীতে আন্দোলনরত বিরোধী গ্রæপটি ইফতার মাহফিল করার ঘোষণা দেন। তাদের পক্ষ থেকে ইফতার মাহফিলের আয়োজন করার দাবী জানিয়ে প্রশাসন বরাবরে একটি লিখিত আবেদন করেন সিলেট জেলা ছাত্রদলের সাবেক সহ-সভাপতি সৈয়দ এনায়েত হোসেন । বিষয়টি বিএনপি’র উভয় গ্রæপের তৃণমূল নেতা কর্মীদের মাঝে প্রচার হলে এ নিয়ে চাপা ক্ষোভ ও উত্তেজনা বিরাজ করছে।

সিলেট জেলা ছাত্রদলের সাবেক সহ-সভাপতি সৈয়দ এনায়েত হোসেন জানান, আমরা সিন্ডিকেট কমিটির বিরোদ্ধে অবস্থান নিয়েছি। যারা টাকা হাতিয়ে নিয়ে প্রবাসীদের দিয়ে পকেট কমিটি করেছেন আমরা এর বিরোধীতা করছি। দেশনেত্রী খালেদা জিয়ার মুক্তি, জননেতা তারেক রহমানের হাতকে শক্তিশালী এবং এম ইলিয়াছ আলীর সন্ধান দাবী আন্দোলন জোরালো করতে এই পকেট কমিটি কোন ভূমিকা পালন করতে পারবে না। কমিটি বাতিল করে ত্যাগী নেতা কর্মীদের সমন্বয়ে কমিটি গঠন না হওয়া পর্যন্ত আমাদের আন্দোলন চলবে।
নব গঠিত কমিটির বিরোদ্ধে আদালতে মামলা দায়েরকারী বিএনপি নেতা সৈয়দ এনামুল হক পীর এনাম জানান, বিএনপির রাজপথের মূল ত্যাগী নেতা কর্মীদের সংঘটিত করতে আমরা ইতোমধ্যে তাজপুরে একটি বিশাল ইফতার মাহফিল সম্পন্ন করেছি। তৃণমূল নেতা কর্মীদের দাবীতে আগামি বুধবারে দয়ামীরের মাহরা পার্টি সেন্টার, দয়ামীর বাজার সংলগ্ন তাহিদ খান সেন্টার এবং কুরুয়া বাজারস্থ একটি সেন্টারে পৃথক ইফতারের আয়োজন করেছি। বিএনপি’র গঠনতন্ত্র অমান্য করে গঠিত পকেট কমিটি বাতিলের দাবীতে আদালতে মামলা করেছি। আমরা বিএনপিকে তৃণমূলে সংঘটিত করতে নিয়মতান্ত্রিকভাবে কাজ করছি।

নবগঠিত উপজেলা বিএনপির সভাপতি এসটিএম ফখর উদ্দিন চেয়ারম্যান জানান, আগামি বুধবারে মাহরা সেন্টারে উপজেলা বিএনপি’র ইফতার মাহফিল এর আয়োজন করা হয়েছে। অন্য কোন গ্রæপ এখানে ইফতারের আয়োজন করেছে এটা আমার জানা নেই। মাহরা সেন্টারে ইফতারের সিদ্ধান্ত আমরা আগে নিয়েছি।
ওসমানীনগর থানার অফিসার্স ইন্চার্জ এস এম মাঈন উদ্দিন বলেন, বিএনপি’র একটি গ্রæপ ইফতার করার জন্য আমাদের কাছে লিখিত অনুমতি চেয়েছে। আমরা উভয় গ্রæপকে থাকার শান্ত থাকার কথা বলেছি। বিষয়টি ইএনও স্যারের সাথে পরামর্শ করেছি। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে রাখতে আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়া হবে।
ওসমানীনগর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা নীলিমা রায়হানা বলেন, বিএনপির দু’টি গ্রæপ একই স্থানে একই দিনে ইফতারের আয়োজন করেছে শুনেছি। প্রশাসনের পক্ষ থেকে উভয়কে সংযত থাকতে বলেছি। প্রশাসন সময় মতো বিহিত ব্যবস্থা নেবে।

প্রসঙ্গত গত ২৮ ফেব্রæয়ারী একটি কাউন্সিলের মাধ্যমে উপজেলা বিএনপি’র কমিটি গঠন করা হয়। বিএনপি’র গঠনতন্ত্র অনুযায়ী কাউন্সিল হচ্ছেনা এমন অভিযোগ এনে তাৎক্ষণিক বিএনপি নেতা সৈয়দ এনামুল হক পীর এনাম, উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান গয়াছ মিয়া, সাবেক জেলা ছাত্রদল নেতা সৈয়দ এনায়েত হোসেন সহ অনেক নেতা কর্মী কাউন্সিলস্থল ত্যাগ করেন। এরপর কমিটি বাতিলের দাবীতে ৯ জনের বিরোদ্ধে আদালতে মামলা দায়ের করা হয়েছে। আদালত অভিযুক্তদের বিরোদ্ধে সমন জারি করেছেন। এবং নব গঠিত কমিটির সভাপতি সাধারণ সম্পাদকসহ ৫জনকে শোকজ করেছেন।

এই সংবাদটি শেয়ার করুনঃ

এই ক্যাটাগরির আরো সংবাদ
© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত
ডিজাইন ও কারিগরি সহযোগিতায়: Jp Host BD
jphostbd-15000